যৌন স্বাস্থ্য, সম্পর্ক, সামাজিক সচেতনতা

যৌন সম্পর্ক স্থাপনের আগে যে ৪টি বিষয় অবশ্যই মাথায় রাখবেন

মানুষের জীবনের অন্যতম গুরুত্বপূর্ণ অংশগুলোর মধ্যে যৌন সম্পর্ক একটি। যদিও বিষয়টি প্রত্যেক মানুষের একান্তই নিজস্ব তবুও বয়স,সময়,সম্পর্ক ও নৈতিক দিক থেকে কিছু বিধিনিষেধ মেনে চলা প্রয়োজন। চলুন সেগুলো সম্পর্কে জেনে নিই-

আপনার এবং আপনার সঙ্গীর চিন্তাভাবনা এক তো?

যার সাথে শারীরিক সম্পর্কে আবদ্ধ হতে যাচ্ছেন তার এবং আপনার যৌনতা সম্পর্ক ধারণা এক কি না তা জেনে নিন। আপনাদের দুই জনের মধ্যে মানসিক সম্পর্ক কতোটা গাঢ় সেটা বিবেচনা করুন।

আপনার জীবনযাত্রার এটি সাথে কতোটা সম্পর্কিত?

কোনো ধরনের শারীরিক সম্পর্কে লিপ্ত হওয়ার আগে আপনার পারিপার্শ্বিক অবস্থা চিন্তা করে নিন। বিবাহিত মানুষের অন্য কারো সাথে সম্পর্কে জড়ানো অনুচিত। কারো সাথে প্রতারণা করা উচিৎ নয়।

আপনার সঙ্গী কি আপনার জন্য উপযুক্ত?

আপনার যার সাথে সম্পর্ক তার সাথে শারীরিক সম্পর্কে আবদ্ধ হওয়ার আগে নিজেকে প্রশ্ন করুন, আপনি আদৌ কি এর জন্য প্রস্তুত?

অনেক সময় এমন হয় যে আপনি জানেন আপনার সঙ্গী আপনার প্রতি বিশ্বস্ত নয়, কিন্তু পারিপার্শ্বিক কারণে তার সাথে আপনার সম্পর্ক রাখতে হচ্ছে। সেক্ষেত্রে সাবধানে পদক্ষেপ গ্রহণ করুন। আপনার সম্ভ্রম অন্য কারো খেলার বস্তু হতে পারে না।

এটা কি সঠিক সময়?

বিয়ের আগে শারীরিক সম্পর্কে লিপ্ত হওয়া ধর্মীয় এবং সামাজিকভাবে গ্রহণযোগ্য নয়।  তাই যৌন সম্পর্কে আবদ্ধ হওয়ার আগে সময়টি বিবেচনায় রাখুন।

এছাড়া বিভিন্ন ধরনের মানসিক সমস্যার মধ্যে দিয়ে গেলে অনেকেই সমস্যা থেকে মুক্তি পাওয়ার নিমিত্তে এই ধরনের ভুল করে বসেন। কিন্তু মনে রাখবেন, শারীরিক সম্পর্ক সাময়িকভাবে আপনাকে সমস্যার কথা ভুলিয়ে দিলেও, সেটার কোনো স্থায়ী সমাধান দিতে পারেনা। তাই আপনার উচিৎ চিন্তা ভাবনা করে পদক্ষেপ নেয়া

সর্বোপরি, আপনি যৌন সম্পর্কে আবদ্ধ হবেন কি না সেটা সম্পূর্ণ আপনার ইচ্ছার উপর নির্ভর করে। সঠিক সিদ্ধান্ত নিতে চেষ্টা করুন, ভালো খারাপ সম্বন্ধে অবগত থাকুন।

 

*আমাদের সকল লেখা বিশেষজ্ঞ ডাক্তার দ্বারা নিরীক্ষিত*

স্বাস্থ্য সম্পর্কিত যে কোনো সমস্যা, রোগ নির্ণয় এবং ডায়েট প্লান তৈরি করতে ডাউনলোড করুন Rx71 Health App

আপনাদের সুবিধার্থে লিংক দেওয়া হলো http://bit.ly/2aStSKw

 

Comments

comments

পূর্ববর্তী পোস্ট পরবর্তী পোস্ট

আপনি হয়ত এগুলো পছন্দ করতে পারেন